Monday, September 23, 2019
Home > আঞ্চলিক সংবাদ > মঠবাড়িয়ায় অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

মঠবাড়িয়ায় অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

নিজস্ব প্রতিনিধি :
মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) প্রতিনিধি : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় সোমবার সরকারি জমি থেকে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করেছেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। সকালে উপজেলার তুষখালী উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্রের বে-দখল হওয়া জমি থেকে এ অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়।
মঠবাড়িয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা ডা: জামাল মিয়া শোভন জানান, তুষখালী ২ নং মৌজার ৬৫, ৭০ নং দাগের ৯৫ শতাশং জমি হাসপাতালের। বে-দখল রয়েছে আট শতাশং জমি। ওই জমি ছোট মাছুয়া গ্রামের মৃত. আ: লতীফ (চাঁন মিয়া) হাওলাদারের পুত্র হারুন হাওলাদার দীর্ঘ্য দিন ধরে অবৈধভাবে দখল করে একটি টিনসেড ও একটি পাকা দোকান ঘর নির্মাণ করেছেন। বিষয়টি আমাদের নজরে আসলে সিভিল সার্জন ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে অবহিত করা হয়। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে পুুলিশ ও সরকারি সার্ভেয়ারের উপস্থিতিতে বে-দখল হওয়া জমি থেকে এ অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়।
এব্যাপারে মো. হারুন হাওলাদার বলেন, ওই জমি আমার পৈত্রিক সূত্রে পাওয়া। যার দলীল নং-১৪৯৩,দাগ নং-৭০, এস এ খতিয়ান ৭৫, জমির পরিমান পৌনে ৩ শতাশং। গত ৫ বছর ধরে ওই জমি আমার দখলে। আমি জমির খাজনা, ট্যাক্স নিয়মিতভাবে পরিশোধ করে আসছি। এ জমি আমাকে এসিল্যান্ড নকসা করে মেপে দখল বুঝিয়ে দিয়েছেন। কোন নোটিশ ছাড়াই অবৈধভাবে আমার স্থাপনা গুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। হাসপাতালের জমির সাথে আমার কোন সম্পর্ক নেই।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জিএম সরফরাজ জানান, স্বাস্থ্য কর্মকর্তার আবেদনের প্রেক্ষিতে আমি আইনী সহযোগিতা দেওয়া হয়েছে। ওই জমি নিয়ে পারস্পরিক অভিযোগ ওঠায় পরবর্তিতে বৈঠকের মাধ্যমে সমাধান করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *