Monday, September 27, 2021
Home > আঞ্চলিক সংবাদ > বিজয়নগরে দৃষ্টিনন্দন ঘরে মাথা গোঁজার ঠাঁই পেল ১শ পরিবার

বিজয়নগরে দৃষ্টিনন্দন ঘরে মাথা গোঁজার ঠাঁই পেল ১শ পরিবার

বিজয়নগর প্রতিনিধি : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগরে ১০ ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের জন্য নির্মাণ করা হয়েছে ১০০টি দৃষ্টিনন্দন ঘর। প্রতিটি ঘরে রয়েছে ২টি কক্ষ, ১টি রান্নাঘর ও ১টি টয়লেট এবং সামনের দিকে টানা বারান্দা।

২০২০ সালের শেষ দিকে সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী টাস্কফোর্স কমিটির মাধ্যমে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নেতৃত্বে সেমিপাকা ঘরগুলোর নির্মাণ কাজ শুরু হয়।

আজ শনিবার (২৩ জানুয়ারি) সকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভার্চুয়াল উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মাধ্যমে বিজয়নগর উপজেলায় ভূমিহীন ও গৃহহীন ১০০টি পরিবারের মধ্যে মুজিববর্ষের উপহার হিসেবে ঘরগুলো প্রদান করা হয়।

একই সময় সারাদেশে ৬৬ হাজার ১৮৯ ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবারকে দুই শতক করে জমি এবং একটি সেমিপাকা ঘর মুজিববর্ষের উপহার হিসেবে প্রদান করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধামন্ত্রীর ভার্চুয়ালী উদ্বোধনী অনুষ্ঠান জাঁকঝমকপূর্ণ ভাবে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা চত্ত্বরে প্রদর্শন করা হয়। এসময় উপজেলা চেয়ারম্যান নাছিমা মুকাই আলী, উপজেলা নির্বাহী অফিসার কে এম ইয়াসির আরাফাত, সহকারি কমিশনার (ভূমি) মাহবুবুর রহমান, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সাবিত্রী রানী, থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আতিকুর রহমান, উপজেলা প্রকল্প কর্মকর্তা শাহিনুর জাহান,উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ মাসুম সহ বিভিন্ন দপ্তরের প্রধানগণ,মুক্তিযোদ্ধা, রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গ, সাংবাদিক ও বিভিন্ন পেশার লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার কে এম ইয়াসির আরাফাত জানান, বিজয়নগর উপজেলায় নির্মিত হয়েছে ১০০টি সেমিপাকা ঘর। মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে জমি এবং গৃহ প্রদান প্রকল্পের আওতায় জেলা পর্যায়ে ডিসি এবং উপজেলা পর্যায়ে ইউএনওকে আহ্বায়ক করে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় এসব গৃহনির্মাণ কাজ বাস্তবায়ন করেছে।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান জিয়াউল হক বকুল জানান, রঙ্গিণ টিনের ছাউনি ও অফ-হোয়াইট রঙের দেয়ালের সমন্বয়ে ঘরগুলো দৃষ্টিনন্দন ও মনোমুগ্ধকর হয়েছে।

ঘর পাওয়ার সুবিধাভোগীর তালিকায় থাকা বুধন্তী ইউনিয়নের বিল্লাল মিয়া ও ইছাপুরা ইউনিয়নের মির্জাপুর গ্রামের হুমায়ুন মিয়া, মমচাঁন বেগম বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কল্যাণে মাথা গোজার ঠাঁই হতে যাচ্ছে। বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার জন্য ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবারের পক্ষ থেকে প্রাণভরে দোয়া করি, মহান আল্লাহ তায়ালা যেন থাকে সুস্থ রাখেন এবং ভালো রাখেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার কে এম ইয়াসির আরাফাত বলেন, ব্রাহ্মণবািড়য়া -৩ আসনের মানীয়ন সংসদ সদস্য র আ উবায়দুল মোক্তাদির চৌধুরী এমপি এবং উপজেলা পরিষদের সার্বিক সহযোগিতা ও পরামর্শে স্বচ্ছতা এবং সততার সঙ্গে শতভাগ মান বজায় রেখে গৃহনির্মাণ কাজ প্রায় পর্যায়ে।ইতিমধ্যে উপজেলার ১০০টি ঘরের মধ্যে ৭৫ ভাগ ঘরের কাজ শেষ হয়েছে কয়েকদিনের মধ্যে শতভাগ ঘরগুলোর কাজ সম্পন্ন হবে।

উল্লেখ্য, পুরো উপজেলায় সরকার দুই ক্যাটাগরিতে ১ হাজার ১৪৬টি পরিবারের তালিকা তৈরি করেছে। এর মধ্যে ভূমিহীন ও গৃহহীন ৫শ ১৮টি পরিবার এবং জমি আছে কিন্তু ঘর নেই এমন রয়েছে ৬শ ২৮টি পরিবার। যাদের সবাইকে পর্যায়ক্রমে মুজিব শতবর্ষ উপলক্ষে সেমিপাকা ঘর উপহার হিসেবে প্রধান করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

Like & Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *